1. admanu3@gmail.com : admanu :
  2. arnasir81@gmail.com : আব্দুর রহমান নাসির - বিশেষ প্রতিবেদক : আব্দুর রহমান নাসির - বিশেষ প্রতিবেদক
  3. nrad2007@gmail.com : এডমিন পেনেল : এডমিন পেনেল
  4. kawsarkayes@gmail.com : মোঃ আবু কাউসার - বিশেষ প্রতিবেদক : মোঃ আবু কাউসার - বিশেষ প্রতিবেদক
  5. ad@gil.com : মোহাম্মদ আবু দারদা সহ-সম্পাদক : মোহাম্মদ আবু দারদা সহ-সম্পাদক
  6. rafiqpress07@gmail.com : সম্পাদক ও প্রকাশক - এম.রফিকুল ইসলাম : সম্পাদক ও প্রকাশক - এম.রফিকুল ইসলাম
  7. asmarimi85@gmail.com : আসমা আক্তার রিমি সহ-সম্পাদক : আসমা আক্তার রিমি সহ-সম্পাদক
শুক্রবার, ৩০ অক্টোবর ২০২০, ০৪:০৫ অপরাহ্ন

রাজশাহীতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বাড়লেও স্বাস্থ্যবিধি মানছেনা কেউ

প্রথম সংবাদ ডেস্ক :
  • আপডেট সময় সোমবার, ৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ২ বার পড়া হয়েছে

লিয়াকত রাজশাহী ব্যুরো :

রাজশাহী বিভাগের আট জেলার মধ্যে পঁাচ জেলায় গত ২৪ ঘণ্টায় আরো ৮৫ জনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। একই সময় এই বিভাগে কোনো করোনা আক্রান্ত রোগি মারা যায়নি। এছাড়াও গত ২৪ ঘন্টয় সুস্থ্য হয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরেছেন ২৩০ জন। আজ সোমবার সকাল পর্যন্ত এ বিভাগে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দঁাড়িয়েছে ১৮ হাজার ৪২৩ জনে। এ বিভাগে এখন পর্যন্ত মারা গেছেন ২৬৮ জন এবং সুস্থ্য হয়েছেন ১৪ হাজার ১০৮ জন। বর্তমানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ৪ হাজার ৭৩৫ জন। দুপুরে এক প্রতিবেদনে রাজশাহী বিভাগীয় স্বাস্থ্য দপ্তারের পরিচালক ডা. গোপেন্দ্র নাথ আচাযর্য এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, নতুন শনাক্তের মধ্যে রাজশাহীর ১০ জন, চঁাপাইনবাবগঞ্জের ১১ জন, নাটোরে ২৩ জন, বগুড়ায় ৩৬ জন ও সিরাজগঞ্জে ৫ জন। তবে নওগঁা, জয়পুরহাট ও পাবনায় এ দিন কোন করোনা রোগি শনাক্ত হয়নি। রাজশাহী বিভাগে এ পর্যন্ত করোনা আক্রান্তদের মধ্যে সর্বোচ্চ বগুড়ায় ৬ হাজার ৯৪৯ জন। এছাড়াও রাজশাহীতে ৪ হাজার ৬৬০ জন, চঁাপাইনবাবগঞ্জে ৭২৮ জন, নওগঁায় ১ হাজার ১৮১ জন, নাটোরে ৮৯১ জন, জয়পুরহাটে ৯৭৯ জন, সিরাজগঞ্জে ১ হাজার ৯৯১ জন ও পাবনায় ১ হাজার ৪৪ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

সকল প্রকার যানবাহ চলাচল করায় প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ এই বিভাগীয় শহর রাজশাহীতে আসেন কাজ করতে ও কাজের সন্ধানে। কিন্তু অফিস আ্দালত বাদে সকল স্থানেই মানা হচ্ছেনা স্বাস্থ্যবিধি। সরকারীভাবে বাড়ির বাহিরে মাস্ত পড়া বাধ্যতা মূলক হলেও ৮০ ভাগ লোকের মুখে নেই মাস্ক। মানছেনা কেউ সামাজিক দুরত্ব। জানতে চাইলে মাসারুল, হালিম, আফতাব, মখলেসুর, আবু তালেবসহ অন্যান্যরা বলেন, এখন করোনার ওেতমন পভাব নাই। আর সার্বক্ষণিক মাস্ক পড়তে তাদের ভালো লাগেনা। তারা এভাবেই চলবেন। আল্লাহ যা করেন।

শুধু রাস্তাঘাটে নয় বেশীর ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানগুলোতে ৯০ভাগ মানুষ নামাজ ও অন্যান্য ধর্মের লোকেরা প্রার্থনা করছেন। তারাও মাস্ক পড়ার প্রয়োজন মনে করছেন না। মসজিদ কমিটি এবং ইমাম মুসল্লিদের মাস্ক পড়ে মসজিদে আসার কথা বললেও মানছেন না তারা। অবশ্য মাস্ক পড়া নিয়ে রাজশাহী জেলা প্রশাসন হতে মাঝে মধ্যে ভ্রাম্যমান আদালত করতে দেখা যায়। অনেককে আবার জমিমনা করতে দেখা গেছে।

এদিকে যানবাহনে বিশেষ করে বাসে অতিরিক্ত যাত্রী না নেয়ার জন্য বলা হলেও অনেক যাত্রীকে দঁাড়িয়ে যেতে দেখা যায়। সেখানেও বেশীর ভাগ যাত্রীর মুখে নেই মাস্ক। কারো নিকট থাকলেও সেগুলো থুথনির নিচেই বেশী দেখা যায়। তবে সচেতন নাগরীকগণ বলছেন করোনা এখনো যায়নি। বিশ্বব্যাপি দাপিয়ে বেড়াচ্ছে। পার্শবর্তী দেশ ভারতে প্রতিদিন লক্ষ লক্ষ মানুষ আক্রান্ত হচ্ছে। বাংলাদেশেও পরীক্ষা হিসাবে গড়ে ২০ভাগের উপরে আক্রান্তের সংখ্যা রয়েছে। যদিও মৃত্যুর হার কম। তারা সকলকে অবহেলা না করে বাড়ির বাহিরে আস লে মাস্ক পড়ে আসার পরামর্শ দেন।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর