ইবিতে খেলোয়াড়দের আন্দোলন, প্রধান ফটকে তালা

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে পাঁচ দফা দাবিতে আন্দোলন করেছে খেলোয়াড়রা। বুধবার (২৫ জানুয়ারি) দুপুর ২টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকে তালা ঝুলিয়ে এ আন্দোলন করেছে তারা। এসময় প্রায় ২০ থেকে ২৫ জন খেলোয়াড়ের উপস্থিতিতে ফটক অবরোধ ও আন্দোলন করেন। এতে আটকে যায় কুষ্টিয়া, ঝিনাইদহ ও শৈলকূপার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাওয়া সকল বাস।

এসময় খোলোয়াড়রা আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় প্রতিযোগিতার সকল ইভেন্টে অংশগ্রহণ, নিয়মিত প্রতিবছর খেলার সূচি তৈরি, বিশ্ববিদ্যালয়ের অভ্যন্তরীণ খেলাগুলো সচল ও খেলাধুলা বাবদ জমাকৃত অর্থ বিশ্ববিদ্যালয়ের ফান্ড থেকে আলাদা করে শারীরিক শিক্ষা বিভাগে জমা করতে হবে।

জানা যায়, এসব দাবি নিয়ে সকালে জিমনেশিয়াম তালাবদ্ধ করেন খেলোয়াড়রা। তারপর কর্তৃপক্ষ আলোচনা করতে চাইলে শারীরিক শিক্ষা বিভাগের পরিচালক ড. সোহেলের সাথে বসেন খেলোয়াড়রা। নানা রকম অজুহাতে খেলোয়াড়দের দাবি এড়িয়ে যায় শারীরিক শিক্ষা বিভাগের পরিচালক। পরে দুপুর দুইটায় তারা ক্যাম্পাসের প্রধান ফটকে তালা ঝুলিয়ে আন্দোলন শুরু করেন।

আন্দোলনকারীরা বলেন, প্রতিবছর খেলাধুলা বাবদ ভর্তির সময় ১৬০ টাকা করে দেওয়া হয়। অথচ ৩ বছর বিশ্ববিদ্যালয়ের অভ্যান্তরে আন্তঃবিভাগ টুর্নামেন্টের আয়োজন করা হয় না। টাকাগুলো কোথায় যাচ্ছে? আমরা এর হিসাব চাই। প্রশাসন দাবিগুলো মেনে না নিলে আমরা আন্দোলন চালিয়ে যাব।

প্রায় আধা ঘণ্টা আন্দোলনের পর প্রক্টরিয়াল বডি ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়। প্রশাসনের সাথে আলোচনার আশ্বাস দিলে তারা আন্দোলন স্থগিত করে। এসময় শারীরিক শিক্ষা বিভাগের পরিচালক ড. সোহেল বলেন, আমরা আন্তঃবিভাগ ক্রিকেট খেলার জন্য সভাপতির কাছে নোটিশ পাঠিয়েছি। অন্য দাবিগুলোর বিষয়ে প্রশাসনের সাথে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নিব।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. জাহাঙ্গীর হোসেন বলেন, বিষয়টা শনিবার সমাধান হবে।

#প্রথম সংবাদ

- Advertisement -

সর্বশেষ সংবাদ