টেকনাফে বিজিবি’র অভিযানে ইয়াবা উদ্ধার, আটক ১

Link Copied!

০৫ অক্টোবর বিজিবি’র টেকনাফ ব্যাটালিয়ন (২ বিজিবি) কর্তৃক পরিচালিত অভিযানে ০১ জন আসামীসহ ১,৮০,০০,০০০/- (এক কোটি আশি লক্ষ) টাকা মূল্যমানের ৬০,০০০ (ষাট হাজার) পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়েছে।

বিজিবি’র টেকনাফ ব্যাটালিয়ন (২ বিজিবি) গোপন তথ্যের ভিত্তিতে জানতে পারে যে, অধীনস্থ দমদমিয়া বিওপি’র দায়িত্বপূর্ণ বিআরএম-১০ হতে আনুমানিক ৮০০ গজ দক্ষিণে জাদিমোড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের বিপরীতে একটি বাড়ীতে ইয়াবা ট্যাবলেট লুকায়িত রয়েছে।

উক্ত তথ্যের ভিত্তিতে ০৫ অক্টোবর ২০২১ তারিখ ০০৩০ ঘটিকায় টেকনাফ ব্যাটালিয়ন সদরের একটি বিশেষ টহলদল দ্রুত বর্ণিত এলাকায় গমন করতঃ মোঃ করিম (২৭) এর বাড়ীতে তল্লাশী অভিযান পরিচালনা করে। পরবর্তীতে এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তির উপস্থিতিতে তাকে জিজ্ঞাসাবাদের একপর্যায়ে তার তথ্যের ভিত্তিতে ঘরের ফলস সিলিং এর উপরে অভিনব পদ্ধতিতে লুকায়িত অবস্থায় ১,৮০,০০,০০০/- (এক কোটি আশি লক্ষ) টাকা মূল্যমানের ৬০,০০০ (ষাট হাজার) পিস ইয়াবা ট্যাবলেট জব্দ করা হয়।

এছাড়াও উক্ত আসামীর ঘরের খাটের নিচ হতে ০১টি ধারালো কিরিচ উদ্ধার করা হয়। আটককৃত আসামী হলো- (১) মোঃ করিম (২৭), পিতা- মৃত সুলতান আহম্মেদ, মাতা-মোছাঃ কায়শা বিবি (৭০), গ্রাম-জাদিমোড়া, পোষ্ট-নয়াপাড়া, থানা- টেকনাফ, জেলা-কক্সবাজার।

আটককৃত আসামীকে জব্দকৃত ইয়াবা ট্যাবলেটসহ নিয়মিত মামলার মাধ্যমে টেকনাফ মডেল থানায় হস্তান্তর করার কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

উল্লেখ্য, টেকনাফ ব্যাটালিয়ন (২ বিজিবি) টেকনাফ সীমান্তের দায়িত্বভার গ্রহণের পর হতে মাদকদ্রব্য পাচার প্রতিরোধ, অবৈধ অনুপ্রবেশ প্রতিহত, মানবপাচারসহ সীমান্তে সংঘটিত সকল প্রকার সীমান্ত অপরাধসমূহ প্রতিরোধকল্পে অতন্দ্র প্রহরী হিসেবে নিরলসভাবে কাজ করে ধারাবাহিক সাফল্য অর্জন করে যাচ্ছে।

টেকনাফ ব্যাটালিয়ন (২ বিজিবি) মাদকের জিরো টলারেন্স নীতি অবলম্বন করায় সাধারণ জনগণের মনে আস্থা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে।