চিরকুট লিখে এমসি কলেজের শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা

রুবেল আহমদ সিলেট থেকে:

সিলেট মহানগর পুলিশের শাহপরাণ থানাধীন শিবগঞ্জ হাতিমবাগ এলাকায় এমসি কলেজের মাস্টার্সের শিক্ষার্থ মৌমিতা দাস পপি (২৬) আত্মহত্যা করেছেন।

তিনি বালাগঞ্জ উপজেলার কায়স্থঘাট গ্রামের রাজকুমার দাসের মেয়ে। বর্তমানে স্বপরিবারে তারা হাতিমবাগ এলাকার ১ নম্বর রোডের ৪ নম্বর বাসায় বসবাস করে আসছেন
রবিবার (৯ আগস্ট) দুপুর আড়াইটার দিকে শাহপরাণ থানার এসআই রিপটন পুরকায়স্থ পপির লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেন।
তিনি জানান, পপি প্যারালাইসেস রোগে আক্রান্ত ছিলেন। হতাশা থেকে তিনি শনিবার (৮ আগস্ট) রাতে নিজ কক্ষের ফ্যানের সাথে রশি দিয়ে ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। রবিবার (৯ আগস্ট) তার পরিবারের সদস্যরা তাকে ডাকতে গেলে তাকে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেন।
পরে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে। আত্মহত্যার পর তার রুম থেকে পুলিশ একটি চিঠি উদ্ধার করেছে। সেই চিঠিতে লিখা রয়েছে, আমি পঙ্গু হয়ে বাঁচতে চাই না।